দাড়ি রেখে মা’র্কিন সেনা’তে চাকরি করতে পারবে মুস’লিমরা

হিজাব-পাগ’ড়ি পরে এবং দাড়ি রেখে মা’র্কিন বিমান বাহি’নীতে চাকরি করতে পারবেন মুসলমান ও শিখ ধর্মাবলম্বীরা। গত সপ্তাহে চূ’ড়ান্ত হওয়া নীতিমালা অনুসারে, শি’খ ও

মুসলমানরা তা’দের ধর্মীয় পোশা’কের স’ঙ্গে খাপ খাইয়েই এই চাকরি করতে পারবেন। তারা পাগড়ি ও হিজাব পরতে পারবেন। আবার ধর্মীয় বি’ধি অনুসারে দাড়ি রেখে, চুল না কেটেও থাকতে পারবেন।

আন্তর্জা’তিক সংবাদমাধ্যম সিএন’এন জানিয়েছে এ খবর। আগে ধর্মীয় পোশাক পরার ক্ষেত্রে তাদের ব্যাপক বিধিনিষেধের মধ্য দিয়ে যেতে হতো। এক এক করে বিবেচনা করে সেই অনুমোদন দেয়া হতো। কিন্তু নতুন বিধিমালা’য় সেই প্রক্রিয়া সহজ

ও দ্রুত করা হয়েছে। নতুন বি’ধিমালায় যুক্ত’রাষ্ট্রের ভেতরে ধর্মীয় পোশাকের অনুমোদন পেতে ৩০ দিন ও দেশটির বাইরে হলে ৬০ দিন সময় লাগবে। আর সবচেয়ে গুরুত্ব’পূর্ণ বিষয় হচ্ছে– ক্যারিয়া’রের পুরোটা

স’ময়ই তারা এই পো’শাক পরার অনুমোদন পাবেন। শিখ ও মুসলিম অ্যাডভো’কেসি গো”ষ্ঠীগুলো বলছে– সব ধর্মাবলম্বীর অন্তর্ভু’ক্তির ক্ষেত্রে এটি গু’রুত্বপূর্ণ পদক্ষেপ। যদিও কে’উ কেউ বলছেন, এ

ক্ষেত্রে সামরিক বাহিনীকে আরও সামনে এগিয়ে যেতে হবে। কা’উন্সিল অব আমে’রিকান-ইসলা’মিক রিলেশনসের জাতীয় যোগা’যোগ পরিচালক ইব্রাহীম হুপার বলেন, নতুন এই বিধিমা’লাকে আমরা স্বাগত জানাই।


“দৃষ্টি আকর্ষণ ”
এই সাইটে সাধারণত আম’রা নিজস্ব কোনো খবর তৈরী করি না।..আম’রা বিভিন্ন নিউজ সাইট থেকে খবর’গুলো সংশ্লিষ্ট সূত্রসহ প্রকাশ করে থাকি..তাই কোনো খবর নিয়ে আ’পত্তি বা অ’ভিযোগ থাকলে সংশ্লিষ্ট নিউজ সাইটের কতৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ করার অনুরোধ রইলো।
“বিশেষ দ্রষ্টব্য” কোনো শব্দের বানানে ভুল-ত্রুটি হলে, দয়া করে ক্ষমার দৃষ্টিতে দেখবেন।